কেশবপুরের মঙ্গলকোটে ইউপি নির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার্থীর নির্বাচনি অফিস ভাংচুরের অভিযোগ

প্রকাশিত: ৫:২০ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ২৩, ২০২১ | আপডেট: ৫:২০:অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ২৩, ২০২১
কেশবপুরের মঙ্গলকোট ইউনিয়নে বুধবার রাতে স্বতন্ত্র প্রার্থীর নির্বাচনী অফিস ভাংচুরের দৃশ্য।

যশোরের কেশবপুরের মঙ্গলকোট ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগ মনোনীত নৌকা প্রতিকের প্রার্থী আব্দুল কাদের বিশ্বাসের বিরুদ্ধে আওয়ামীলীগের বিদ্রোহী(স্বতন্ত্র) প্রার্থী বর্তমান চেয়ারম্যান মনোয়ার হোসেনের নির্বাচনি অফিস ভাংচুর ও প্রচারণায় বাঁধাদান ও পোষ্টার ছেড়ার অভিযোগ এনে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও কেশবপুর থানা পুলিশে লিখিত অভিযোগ করেছেন স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী মনোয়ার হোসেন।

বৃহস্পতিবার দেয়া লিখিত অভিযোগে উল্লেখ করা হয়েছে যে, ২২ ডিসেম্বর রাতে মঙ্গলকোট বাজার সংলগ্ন মুকুন্দ মাষ্টারের জমিতে থাকা আনারস প্রতিকের নির্বাচনি অফিস নৌকা প্রতিকের কর্মী সমর্থকরা ভেঙ্গে গুড়িয়ে দেয়।

এছাড়া একই দিনে বিকাল ৫টা ২০ মিনিটের সময় আনারস প্রতিকের প্রচার ভ্যান আড়ের মাথা নামকস্থানে পৌছালে নৌকা প্রতিকের কর্মী মঙ্গলকোট গ্রামের কামরুজ্জামান, আবু সুফিয়ান সাগর, লিটন গাজী, শাহিনুর রহমান মোল্যা, বসুন্তিয়া গ্রামের মিন্টুৃ, পিন্টু গাজি, কর্ন্দপপুর গ্রামের রুহুল আমিন, আতিয়ার রহমান, আব্দুল লতিফ, আব্দুর রাজ্জাক, আবু সাইদ, নাসির গাজিসহ অজ্ঞাতনামা উশৃঙ্খল ব্যক্তিরা মাইক প্রচারে বাঁধাদানসহ প্রাণ নাশের হুমকী দেয়। নৌকা প্রতিকের প্রার্থী ও তার কর্মী সমর্থকরা বিভিন্ন স্থানে প্রকাশ্যে হুমকী দিয়ে নির্বাচনের পরিবেশ ঘোলাটে করে তুলছে।

 

স্বতন্ত্র প্রার্থী মনোনয়ার হোসেন সাংবাদিকদের বলেন, নৌকা প্রতিকের প্রার্থী ও তার কর্মী সমর্থকরা পায়ে পা দিয়ে ঝগড়া বাধানোর প্রচেষ্টায় লিপ্ত রয়েছে।

এ বিষয়ে নৌকা প্রতিকের প্রার্থী আব্দুল কাদের বিশ্বাসের নিকট সাংবাদিকরা জানতে চাইলে তিনি বলেন এটা সম্পুর্ণ মিথ্যা।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার অফিস সুত্র অভিযোগ প্রাপ্তির কথা স্বীকার করেছেন।


আপনার মতামত লিখুন :

মশিয়ার রহমান। নিজস্ব প্রতিবেদক। কেশবপুর, যশোর