পাইকগাছায় প্রথম বারের মতো চাষাবাদ হচ্ছে সমলয় পদ্ধতির বোরো আবাদ

প্রকাশিত: ১০:৫৮ পূর্বাহ্ণ, ডিসেম্বর ১৯, ২০২১ | আপডেট: ১০:৫৮:পূর্বাহ্ণ, ডিসেম্বর ১৯, ২০২১

পাইকগাছায় প্রথম বারের মতো সমলয় বোরো আবাদ শুরু করা হয়েছে। সারাদেশের ন্যায় উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের সহযোগিতায় এলাকার কৃষকরা এবারই প্রথম বারের মত সমলয় বোরো আবাদ করছে। উপজেলার হরিঢালী ইউনিয়নের দক্ষিণ সোনাতনকাটী মৌজায় এলাকার ৫২জন কৃষক চলতি মৌসুমে ৫০ একর জমিতে যান্ত্রিক উপায়ে সমলয় পদ্ধতির এসএল-৮-এইচ হাইব্রীড জাতের বোরো ফসলের আবাদ করছে।

কৃষি বিভাগের উর্দ্ধতন ও স্থানীয় কর্মকর্তাদের উপস্থিতিতে শনিবার সকালে সাড়ে ৪ হাজার ট্রে’তে বীজতলার বীজ বপন করা হয়। এই পদ্ধতিতে ২জন শ্রমিক ১ ঘন্টায় ১ বিঘা জমির ধানের চারারোপন করতে পারবে। এতে ১ লিটার তেল খরচ হবে। লাইন থেকে লাইনের দূরত্ব হবে ১২ ইঞ্চি, চারা থেকে চারার দূরত্ব হবে ৮ ইঞ্চি। সকল কৃষকরা একই জাতের ধানের চারা একই সময়ে একই সাথে রোপন করবে। এতে উৎপাদন খরচ অনেক কম এবং ফলন অনেক বেশি হবে।

অন্য পদ্ধতিতের চেয়ে এ পদ্ধতিতে হেক্টর প্রতি নূন্যতম ৫শ কেজি ধান বেশি উৎপাদন হবে বলে কৃষি বিভাগের কর্তকর্তারা জানিয়েছেন। কৃষি বিভাগের কর্মকর্তারা নিজেরাই মাঠে নেমে বীজ বপন কাজ করেন।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন, কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর খুলনার অতিরিক্ত উপ-পরিচালক উদ্যান মহাদেব চন্দ্র সানা, উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মোঃ জাহাঙ্গীর আলম, কৃষি প্রকৌশলী দীপংকর বালা, উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা মিজানুর রহমান, শাহিনুল ইসলাম, উত্তম কুমার কু-, এসএম মফিজুর রহমান, মিন্টু রায়, বিল্লাল হোসেন, আবুল কালাম আজাদ, শেখ তোফায়েল আহমেদ, ডল্টন রায়, আফজাল হোসেন, সরাজ উদ্দীন মোড়ল, ফকির তৈয়েবুর রহমান, সাধক ঢালী, দেবদাশ রায়, অনিকা অধিকারী, কৃষক জিএম আব্দুস সাত্তার, তাজ উদ্দীন গাজী ও লুৎফর রহমান।


আপনার মতামত লিখুন :

আমিনুল ইসলাম বজলু। নিজস্ব প্রতিবেদক। পাইকগাছা, খুলনা